এবার ইইউ পার্লামেন্ট নির্বাচনে লড়বেন ব্রিটিশ বাংলাদেশি রাবিনা !

ইউ‌রো‌পীয় ইউ‌নিয়‌ন বা ইইউ’র আসন্ন নির্বাচ‌নে লড়াইয়ের ঘোষণা দিয়েছে ব্রিটিশ বাংলাদেশি কাউন্সিলর রাবিনা খান। চলতি বছরের মে মাসে অনুষ্ঠিত হবে ইইউর নির্বাচন।

রাবিনা মূলধারার রাজনৈতিক দল লিবারেল ডেমোক্র্যাট (লিবডেম) পা‌র্টি‌র ব্রেক্সিটবিরোধী অবস্থান থেকে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন।বৃহস্পতিবার এ খবর জানিয়েছে বাংলাদেশের স্থানীয় গণমাধ্যম।

নির্বাচনে লন্ড‌নের আসন থে‌কে লড়‌ছেন রা‌বিনা। ৪৬ বছর বয়সী এই নারীর গ্রা‌মের বাড়ী সি‌লে‌ট জেলার গোলাপগঞ্জ উপ‌জেলায়। বর্তমা‌নে টাওয়ার হ্যাম‌লেটস কাউ‌ন্সিলের শাডও‌য়েল ওয়ার্ড ‌থে‌কে নির্বা‌চিত কাউ‌ন্সিলর তিনি।

এ প্রসঙ্গে রাবিনা গণমাধ্যমকে বলেন, আমার দল লিব‌ডেম রি‌মেই‌নের অর্থাৎ ইইউতে যুক্তরাজ্যের থেকে যাওয়া প‌ক্ষে ক্যা‌ম্পেইন কর‌ছে। আমা‌দের অর্থনী‌তি‌কে শ‌ক্তিশালী রাখার লক্ষ্য নিয়ে আমি স্থানীয় ও জাতীয়ভা‌বে ক্যা‌ম্পেইন কর‌ছি।

চলতি বছরের ২৩ মে যুক্তরাজ্যে ইইউ পার্লামেন্ট নির্বাচ‌নের তারিখ নির্ধারিত করা হয়েছে।

ক্ষমতাসীন কনজারভেটিভ দলের প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে এই নির্বাচনে অংশ নিতে অনাগ্রহী ছিলেন। তবে ব্রেক্সিটের নির্ধারিত তারিখ ৬ মাস পিছিয়ে ৩১ অক্টোবর হওয়ায় নির্বাচনে যুক্তরাজ্যের অংশগ্রহণের বাধ্যবাধকতা সৃষ্টি হয়েছে।

ক্যা‌রিয়া‌রের শুরু‌তে ২০১০ সা‌লে রাবিনা লেবার পা‌র্টির হ‌য়ে প্রথমবার কাউ‌ন্সিলর নির্বা‌চিত হয়েছিলেন। ২০১০ সালের অক্টোবর মাসে তিনি তৎকালীন বাঙালি মেয়র লুতফুর রহমানের দল টাওয়ার হ্যামলেটস ফার্স্ট পার্টিতে যোগ দেন।

এরপর গত বছ‌রের ২৯ আগস্ট তার নি‌জের গড়া দল ‘পিপলস অ্যালায়েন্স অব টাওয়ার হ্যামলেটসকে’ বিলুপ্ত ক‌রে সমর্থক‌দের নি‌য়ে যোগ দেন ব্রি‌টে‌নের রাজনী‌তির মূলধারার দল লিবডেম পা‌র্টি‌তে।

ইউরোপিয়ান ডাইভার্সিটি অ্যাওয়ার্ড বিজয়ী রাবিনা ১৯৯২ সালে ১৯ বছর বয়সে টাওয়ার হ্যাম‌লেট‌সের বা‌সিন্দা আমিনুর খান‌কে বি‌য়ে ক‌রে সেখানে বসবাস শুরু ক‌রেন। তার বই আয়েশাদস রেইনবো সূধিজনের প্রশংসা লাভ করেছে।

টাওয়ার হ্যাম‌লেট‌স কাউ‌ন্সি‌লের গত নির্বাচনে মেয়র প‌দে প্র‌তিদ্বন্দ্বিতা ক‌রে দ্বিতীয় অবস্থা‌নে ছি‌লেন রা‌বিনা খান। এবার ইউরোপীয় পার্লামেন্টের সদস্য হওয়ার লড়াইয়ে নেমেছেন তিনি।

জাহিদুরের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ায় হুঁশিয়ারি ফখরুলের
বাংলাদেশের অন্যতম রাজনৈতিক দল বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে কেউ সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ নিলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন।

তিনি বলেন,দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে কেউ শপথ নিলে দ্রুত শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে। ঠাকুরগাঁও-৩ আসনে ধানের শীষের নির্বাচিত সংসদ সদস্য জাহিদুর রহমান জাহিদের শপথ গ্রহণের পর বিএনপি মহাসচিব দলের এই সিদ্ধান্তের কথা জানান।বৃহস্পতিবার এ খবর জানিয়েছে বাংলাদেশের স্থানীয় গণমাধ্যম।

তিনি বলেন, দলের সিদ্ধান্ত হচ্ছে, শপথ গ্রহণ না করা। যদি কেউ শপথ গ্রহণ করে থাকে তবে ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে দ্রুতই শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এর আগে বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১টায় স্পিকার ড. শিরিন শারমিন চৌধুরীর কাছ থেকে শপথ নেন জাহিদুর রহমান।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশের একাদশ নির্বাচনে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ ৬ জন ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে এবং গণফোরামের ২ জন সদস্য নির্বাচিত হয়।

মতামত দেওয়া বন্ধ আছে